পোল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট বোরোনিস্‌ল কোমোরোস্কি বলেছেন, ২০১৮ সালের মধ্যে তার দেশে মার্কিন ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনে সম্মত হওয়া ছিল একটি রাজনৈতিক ভুল। তিনি 'ওপরোস্ত' সাময়িকীকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে এ অভিমত ব্যক্ত করেছেন। 

কোমোরোস্কি বলেন, পোল্যান্ড মার্কিন প্রস্তাবে রাজী হয়ে ভুল করেছে। আমেরিকার প্রেসিডেন্ট বদলে গেলে যে রাজনৈতিক ঝুঁকি নিতে হবে ওয়ারশ' সে কথা একবারও চিন্তা করেনি। আর এ জন্য পোল‍্যান্ডকে চড়া রাজনৈতিক মূল্য দিতে হয়েছে। বিমান এবং ক্ষেপণাস্ত্র হামলা থেকে যদি নিজেকে রক্ষা করা না যায় তাহলে সামরিক খাতে ব্যাপক অর্থব্যয় অর্থহীন হয়ে দাঁড়ায় বলে তিনি মন্তব্য করেন। 

২০১০ সালের সেপ্টেম্বরে চেক প্রজাতন্ত্র এবং পোল্যান্ডে ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের পরিকল্পনা বাদ দেয়ার ঘোষণা দেয় আমেরিকা। রাশিয়া এ পদক্ষেপকে স্বাগত জানায়। ততকালীন রুশ প্রেসিডেন্ট দিমিত্রি মেদভেদেভ পরে বলেন, কালিনিনগ্রাদ অঞ্চলে ইস্কান্দার ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের পরিকল্পনাও বাদ দেবে রাশিয়া। ন্যাটোভুক্ত দেশ পোল্যান্ড এবং লিথুনিয়ার সীমান্তে কালিনিনগ্রাদ অবস্থিত। কিন্তু পরবর্তীতে গত বছর আমেরিকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিনটন দাবি করেন, ২০১৮ সালের মধ্যে তার দেশ পোল্যান্ডে নতুন প্রজন্মের ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

অনলাইন ডেস্ক