বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ এমপি রোশনারা আলী বলেছেন, “স্বাধীন সাংবাদিকতা একটি সমাজের চেহারাই বদলে দিতে পারে। সাংবাদিকরা যদি কারও কাছে নিজেদের বন্ধক না রেখে সমাজের বাস্তবচিত্র স্বাধীনভাবে তুলে ধরতে পারেন, তাহলে যেকোনো রুগ্‌ণ সমাজই বদলে যেতে বাধ্য।” 

বুধবার পূর্ব লন্ডনের ‘সোনারগাঁও’ রেস্টুরেন্টে নবগঠিত ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাব আয়োজিত ইফতার-পূর্ব আলোচনায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন। আলোচনায় রোশনারা আলী এমপি বলেন, “এই অনুষ্ঠানের ভেতরে বা বাইরে অবস্থানরত কোনো সাংবাদিক সংগঠনের পক্ষে বা বিপক্ষে আমরা নই। আমরা সব সাংবাদিকের মত প্রকাশের স্বাধীনতার পক্ষে। একজন রাজনীতিক হিসেবে আমাদের মিশন ও ভিশন জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে আমরা যেমন সাংবাদিকদের সহযোগিতা প্রত্যাশী, ঠিক তেমনি সমাজের চাহিদা ও বাস্তব অবস্থা রাজনীতিকদের দৃষ্টিতে নিয়ে আসা সাংবাদিকদের দায়িত্ব। এ বিষয়গুলো বিশ্লেষণ করলে রাজনীতিক ও সাংবাদিক একে অপরের পরিপূরক।”

রোশনারা বলেন, “ব্রিটেনে বাংলামিডিয়ার ব্যাপক প্রসার ব্রিটিশ মূলধারায় বাঙালি কমিউনিটির গুরুত্বপূর্ণ অবদানেরই স্বীকৃতি। কমিউনিটির উন্নয়নে বাংলা মিডিয়ার ইতিবাচক ভূমিকা অব্যাহত থাকুক এটিই কামনা করি।” টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিলের ডেপুটি মেয়র অহিদ আহমেদ বাংলা মিডিয়ার সাংবাদিকদের দায়িত্ব পালনে পূর্ণ সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে বলেন, ব্রিটেনে বাংলা মিডিয়ার ইতিহাস দীর্ঘ দিনের। আজকের সমৃদ্ধ বাঙালি কমিউনিটি গড়ে ওঠার পেছনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে বাংলা মিডিয়ার।”

নব গঠিত ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাবের সর্বাঙ্গীন উন্নতি কামনা করে ডেপুটি মেয়র বলেন, “সংগঠনটির উন্নয়নে আমরা সবসময়ই পাশে থাকবো।” অন্য বক্তারাও ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাবকে সার্বিক সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে বলেন, “স্বাধীন সাংবাদিকতা নিশ্চিত করা, পেশাদারিত্বের প্রশিক্ষণ ও লেখালেখির কারণে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন সাংবাদিকদের পাশে দাঁড়াতে ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাব কখনই পিছুপা হবে না।”

আলোচনার আগে ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাবের সদস্য সংগ্রহের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন সংগঠনের আহ্বায়ক রেজা আহমেদ ফয়সল চৌধুরী শুয়েব। ইফতার মাহফিল শেষে সমবেত অতিথিদের নিয়ে সংগঠনের কর্মকর্তারা প্রেসক্লাবের অফিসও উদ্বোধন করেন। প্রেসক্লাবের আহ্বায়ক চ্যানেল আই ইউকের কর্ণধার রেজা আহমদ ফয়সল চৌধুরী শুয়েবের পরিচালনায় এবং সাপ্তাহিক বাংলাটাইমসের প্রধান সম্পাদক, ইউকে-বাংলা প্রেসক্লাবের যুগ্ম-আহ্বায়ক তাজ রহমান, বেতার বাংলার চেয়ারম্যান নাজিম চৌধুরী, এনটিভির অন্যতম পরিচালক মুজিবুর রহমান, এটিএন বাংলার পরিচালক হাফিজ আলশ বক্স ও চ্যানেল-৯-এর পরিচালক এম এম রহমান জাহিদ অনুষ্ঠানে সহযোগিতা করেন।

আলোচনা অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন টাওয়ার হ্যামলেটসের ডেপুটি মেয়র কাউন্সিলর অহিদ আহমেদ, টাওয়ার হ্যামলেটস লেবার পার্টির লিডার কাউন্সিলার জসুয়া প্যাক, কাউন্সিলের সাবেক লিডার হেলাল উদ্দিন আব্বাস, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ইউকে অ্যান্ড আয়ারল্যান্ডের কান্ট্রি ম্যানেজার আতিক চিশতি, মেয়র অ্যাডভাইজার সিরাজ হক, প্রবীণ সাংবাদিক আমিনুল হক বাদশা, ক্যাটারার্স নেতা আশরাফ উদ্দিন ও সাংবাদিক তারেক চৌধুরী প্রমুখ।