পারস্পরিক অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে টেকসই সরকার গঠনে ফিনেগেইল ও ফিনাফল ঐক্যমতে পৌছেছে।

গত সপ্তাহের এক বৈঠকে দুই নেতার মধ্যে হৃদ্যতাপূর্ণ পরিবেশে আলাপ আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়, পরবর্তীতে সরকার গঠনের জন্য নীতিমালা সংবলিত এক চুক্তিতে দুজনেই স্বাক্ষর করেন।

চুক্তিতে যা বলা হয়েছেঃ

  • দুটি দল সমান অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে সরকার গঠন করবে।
  • পাঁচ বছর নির্বিঘ্নে সরকার পরিচালনার ও নির্দিষ্ট সংখ্যক আসন পূরণ করার জন্য সমমনা স্বতন্ত্র টিডি, একটি অথবা দুটি ছোট রাজনৈতিক দলকে সাথে নেয়া হবে।
  • পারস্পরিক অংশীদারিত্ব নিশ্চিত করতে দুটি দল থেকে পর্যায়ক্রমে ২ মেয়াদে প্রধানমন্ত্রী নির্বাচন করা হতে পারে। যেমন: সরকারের প্রথম আড়াই বছর লিও ভারাতকার প্রধানমন্ত্রী থাকলে পরবর্তী আড়াই বছর মাইকেল মার্টিন প্রধানমন্ত্রী থাকবেন।
  • দুটি দল থেকে সমান সংখ্যক টিডি মন্ত্রী পরিষদে স্থান পাবেন।
  • জোট সরকারের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব থাকবে সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় সৃজনশীল নীতিমালা প্রনয়ণ করা ও কোভিড-১৯ পরবর্তী অর্থনীতির দৈন্য দশা থেকে পরিত্রাণ লাভের জন্য ব্যাপক কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা।
  • সামাজিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা ও জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা সংস্থাকে ঢেলে সাজানো।

তথ্যসূত্র: TheJournal.ie (আংশিক অনূদিত)
মনিরুজ্জামান মানিক